মুসলিম বিবাহ ও তালাক রেজিস্ট্রারের কার্যালয়

ড. মোঃ সলিম উল্যাহ

কামিল ফার্স্ট ক্লাস, এম.এ, এলএল.বি. এলএল.এম, পিএইচডি, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

মুসলিম বিবাহ ও তালাক রেজিস্ট্রার

Call Us: +8801711-566039

মহাসচিব

মুসলিম ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ (মুফাবা)

গভঃ রেজি: নং-এস-১৬৪৩(৫৮)৯৫

সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব

বাংলাদেশ মানবাধিকার বাস্তবায়ন ফাউন্ডেশন (বিএমবিএফ)

গভঃ রেজি: নং- এস- ১১১৮১

যুগ্ম মহাসচিব

বাংলাদেশ মুসলিম নিকাহ্ রেজিস্ট্রার সমিতি

সভাপতি

বি এম বি এফ, বাল্যবিবাহ ও যৌতুক প্রতিরোধ কমিটি

চেয়ারম্যান

আল্লামা নুরুজ্জামান জিয়াউন্নিসা ফাউন্ডেশন

পরিচালক

দক্ষিণ আলগী মাওঃ নুরুজ্জামান জিয়াউন্নিসা হাফিজিয়া মাদ্রাসা কমপ্লেক্স

ABOUT US

কাজী অফিস মিরপুর

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহীম। মিরপুর ৬ কাজী অফিস একটি ঐতিহ্যবাহী কাজী অফিস। ১৯৯৮ সাল থেকে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের আইন ও বিধিমালা অনুযায়ী অত্যন্ত সুনামের সহিত সুন্দরভাবে বিবাহ-তালাক রেজিস্ট্রির কাজ পরিচালনা করে আসছি এবং আগামী দিনগুলোতেও বাংলাদেশ সরকারের আইন ও বিধিমালা অনুযায়ী বিবাহ ও তালাক রেজিস্ট্রির কাজ দক্ষতার সাথে পরিচালনা করবো ইনশাআল্লাহ।
ডঃ মো সলিম উল্যাহ

20220725_173029

বিবাহ রেজিস্ট্রেশন এর জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ

বিবাহ রেজিষ্ট্রেশন করার জন্য বরের ২১ বছর এবংকনের ১৮ বছর বাধ্যতামূলক।

বিবাহ রেজিষ্ট্রেশন এর জন্য বরও কনের জাতীয় পরিচয় পত্র, জন্ম নিবন্ধন, এসএসসি বা সমমানের সনদপত্র, পাসপোর্ট এর যেকোন একটির ফটোকপি রেজিস্ট্রারের কাছে জমা দিতে হবে।

বিবাহ রেজিস্ট্রি করার জন্য দুই জন প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষ সাক্ষী বাধ্যতামূলক।

বিবাহ রেজিষ্ট্রেশন এর ফি

দেন মোহর হিসাবে ফি নির্ধারণ করা হয়।

দেন মোহরের প্রতি লাখে ১২৫০ টাকা করে ৪লাখ পর্যন্ত। পরবতী প্রতি লাখে ১০০টাকা করে।
যেমন ১ লাখে =১২৫০.

২ লাখে ২৫০০.

৩ লাখে ৩৭৫০.

৪লাখে ৫০০০.

৫ লাখে ৫০০০+১০০=৫১০০.

৬লাখে ৫০০০+২০০=৫২০০.

১০লাখে৫০০০+৬০০=৫৬০০.

আমাদের সেবাসমূহ

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের আইন ও বিধি অনুযায়ী বিবাহ রেজিস্ট্রেশন করা হয়

যথা সময়ে নিকাহনামা/ কাবিননামা সরবরাহ করা হয়। ।

ম্যারেজ সার্টিফিকেট ও ইংলিশ নিকাহ নামা সরবরাহ করা হয়।।

আইন ও বিধি অনুযায়ী স্বামী কর্তৃক তালাক, স্ত্রী কর্তৃক তালাক ও খোলা তালাক রেজিস্ট্রি করা হয়।

তালাকের ক্ষেত্রে বাংলা তালাকনামা, ইংলিশ তালাকনামা ও ডিভোর্স সার্টিফিকেট সরবরাহ করা হয়।।

বাল্যবিবাহ একটি শাস্তিযোগ্য অপরাধ বিধায় বাল্যবিবাহ প্রতিরোধে জনগণের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি করা হয়।

যৌতুক পারিবারিক কলহ ও দ্বন্দ্ব সৃষ্টি করে এমনকি তালাকের পর্যায়ে নিয়ে যায়, যৌতুক একটি সামাজিক ব্যাধি ও শাস্তিযোগ্য অপরাধ, যাতে করে যৌতুক দেওয়া ও নেওয়ার প্রচলন সমাজে না হয় সেজন্য জনগণের মাঝে যৌতুক বিরোধী প্রচারণা চালানো হয়। ।

রেজিস্ট্রেশন বিহীন বিবাহের আইনগত কোন ভিত্তি নেই বিধায় রেজিস্ট্রেশন ছাড়া যেন কোন বিবাহ না হয় সেজন্য জনগণের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি করা হয়।।

বিবাহ ও তালাক রেজিস্টেশনের ক্ষেত্রে এতিম, গরিব, অসহায় ও প্রতিবন্ধীদের কে বিশেষ সহযোগিতা প্রদান করা হয়।।

বিবাহ ও তালাক সংক্রান্ত যে কোন বিষয়ে সু পরামর্শ ও সহযোগিতা প্রদান করা হয়।

সাবেক আই জি আর ও বাংলাদেশ সুপ্রিমকোর্ট আপিল বিভাগের বিচার পতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিদ্দিকুর রহমান মিয়া স্যার আমার অফিসে বিবাহ ও তালাক রেজিস্ট্রির বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলেন

আমেরিকান এম্বাসিতে বাল্যবিবাহ ও মানব পাচার প্রতিরোধে বিবাহ ও তালাক রেজিস্ট্রারদের ভুমিকা শীর্ষক আলোচনার পর এম্বাসেডর দের সাথে
 
 
এলাকার গুণীজনদের সাথে